ডিডব্লিউডিএম (DWDM) এর পূর্ণরূপ কি? DWDM বলতে কি বুঝায়?

ডিডব্লিউডিএম (DWDM) বর্তমানে খুব জনপ্রিয় একটি নেটওয়ার্ক প্রযুক্তি। এটি পরিষ্কারভাবে যেতে হলে কাহিনীটি এভাবে শুরু হয়েছিলো যে মূলত এটি লম্বাকার রঙিন পাথরের মতো মাধ্যম ব্যবহার করে কাজ করে। ডিডব্লিউডিএম এর পূর্ণ রূপ হলো ‘ডেন্স ওয়েভ ডিভিশন মাল্টিপ্লেক্সিং’। এই টেকনোলজি ব্যবহার করে একটি একক ফাইবার মাধ্যমে অনেক সংখ্যক অবস্থানিক ফাইবারের মতো কাজ করা যায়।

এর মাধ্যমে একই ফাইবারে একাধিক শক্তির তথা তথ্য সংক্রান্ত সিগন্যাল পাঠানো যায় এবং ফাইবার দ্বারা পাঠানো তথ্যে কোন নষ্ট হওয়ার ঝুঁকি চমৎকার ভাবে কমে যায়। এর মাধ্যমে অনেকে একই ফাইবারে বেশিরভাগ তথ্য পাঠিত করতে পারে এবং একই সময়ে একই ফাইবারে বিভিন্ন প্রকারের তথ্য প্রেরণ করতে পারে। DWDM নেটওয়ার্ক বলতে আসলে এমন একটি নেটওয়ার্ক বোঝা যায় যেখান থেকে একাধিক ফাইবার নেটওয়ার্ক মিলে একটি পাওয়া যায়।

DWDM এর ব্যাপারে সমস্যা এবং সমাধান

এই দিনগুলোতে, DWDM (Dense Wavelength Division Multiplexing) ব্যবহার করে নেটওয়ার্ক কনফিগারেশন করার জন্য বেশি ব্যবহৃত হয়। কিন্তু সময় যখন বিস্তৃত ব্যান্ডওয়্যাথে একটি ব্যবহারকারী একজনের পাশে থাকবেনা তখন DWDM উন্নয়ন করে সিগন্যাল ট্রান্সমিশন করতে সমস্যা হতে পারে। তবে, এই সমস্যার সমাধান হতে পারে প্যাটেন্টেড OCM (Optical Channel Monitor) বা অপটিক্যাল চ্যানেল মনিটর ব্যবহার করে। এটি সমস্যার উপর সক্ষম হয় এবং সিগন্যালের দস্তাবেজ সংশোধনে সহায়তা করে, যাতে নেটওয়ার্ক কাজ করতে থাকে।

সামগ্রিকভাবে DWDM নেটওয়ার্কে এই বিপদগুলি কাজ করে এবং একটি ভাল অপটিক্যাল চ্যানেল মনিটর ব্যবহার করা হলে সিগন্যালের গুরুত্বারোপ পরিবর্তন করায় সমস্যার সামাধান হয়ে যায়।

DWDM কি?

DWDM দ্বারা ডাটা ট্রান্সমিশনে একটি সমস্যা ও সমাধান দুটির আলোচনা করা যায়। তবে DWDM কি সেটি প্রথমে জানা প্রয়োজন। DWDM পুর্নরূপ হল Dense Wavelength Division Multiplexing। ইংরেজি থেকে বাংলায় অনুবাদ করলে বোঝা যায় যে এটি সংখ্যাগুলি পূর্ণ ঘনত্বে বিভক্ত করে ডাটা ট্রান্সমিশন করতে পারে, যাতে একই ক্যাবল ব্যবহার করে অনেক দূরের স্থানগুলো সংযুক্ত করা যায়।

সমস্যার দিক থেকে বলতে গেলে, DWDM ব্যবহার করে কয়েকটি উপস্থিতিমূলক ফাইবার একটি ক্যাবলে সংযুক্ত করা হয়। যদিও এটি উপস্থিতিমূলক ফাইবার সারি বিল্ড আপ করে না, তবে ফিজিক্যালি ফাইবারগুলির অবস্থানের উপর নির্ভর করে এটি ভিন্ন ভিন্ন ফাইবারে ভিন্ন ভিন্ন তরং এবং সমস্ত তরঙ্গে ডাটা ট্রান্সমিশন করে। একাধিক উপস্থিতি ব্যবহার করার কারণে ভারী ট্রাফিকের সময় এটি ট্রান্সমিশন এর সময় গুরুত্বপূর্ণ সমস্যা উত্থাপন করতে পারে। সমাধান হিসাবে, DWDM প্রক্ষেপণ শক্তি বাড়িয়ে তুলতে পারে, এতে সম্প্রসারিত ফ্রিকোয়েন্সি ব্যবহার করে অনেক তরঙ্গ একসাথে সংযুক্ত করা যায়।

এতে সর্বনিম্ন জটিলতা বাড়তে পারে এবং সময়ও কম লাগে। বিশেষ করে ভারী ট্রাফিকের সময় এটি খুবই কার্যকরী হতে পারে। DWDM ব্যবহার করে একটি ক্যাবল দিয়ে এক থেকে অনেক জায়গার সংযোগ স্থাপন সম্ভব হয়। তাই DWDM নিয়ে এত গুরুত্ব এবং চেতনার প্রয়োজন।

DWDM কেন্দ্রিক কি কাজ করে?

DWDM বা Dense Wavelength Division Multiplexing হল একটি প্রযুক্তি যেখানে কিছু জন ব্যবহারকারীকে মাল্টিপল মিডিয়া সংযোগ থেকে নেটওয়ার্ক বা সার্ভারে সংযোগ করা যায়। ডাটা পাঠানোর সময় সংযোগ হতে হয় এবং একটি বিশেষ হয়ে ওঠে যা মাল্টিপল মিডিয়া সংযোগে সংশ্লিষ্ট প্রদর্শিত হয়। DWDM এর কাজ হল একটি নেটওয়ার্ক বা সার্ভারের ডাটা ট্রান্সমিশন বা পাঠানো সময় একটি পূর্বনির্ধারিত ব্যান্ডওয়িথ ব্যবহার করে করা হয়। এটি ডাটা লস সম্পর্কে একটি কার্যকর সমাধান প্রদান করে এবং একটি ইতিমধ্যে পূর্বনির্ধারিত ব্যান্ডওয়িথ ব্যবহার করে আমাদের উচ্চগামী ডাটা ট্রান্সমিশন এবং একক স্ক্রীনে বড় ভাবে কম খরচে।

DWDM এ সমস্যা আসতে পারে যখন প্রযুক্তিতে বৃদ্ধি হবে এবং বেশি ব্যবহৃত হবে, তবে এটি দ্বিতীয় নেটওয়ার্ক শ্রম পরিস্কার করার কমপক্ষে একটি কার্যকর সমাধান দেয়।

DWDM এর কাজ করার স্বচ্ছতা কেমন?

DWDM একটি টেকনোলজি যা ব্যবহার করে বিভিন্ন ফাইবার অপটিক লিংকগুলি একত্রে কাজ করতে পারে এবং তাদের ক্ষমতা বাড়াতে পারে। তবে, এই সিস্টেমটি কাজ করার জন্য অত্যন্ত স্বচ্ছতা প্রয়োজন। ফলে পিছনে অবিলম্বে সংবেদনশীলতা সামগ্রী কিংবা পরিবেশের অন্যান্য সন্দর্ভে এই সিস্টেমটি কাজ করতে পারে না। স্বাভাবিকভাবে, ফিবার অপটিক কেবল মুছে ফেলা যায়না বা সাধারণ তাপমাত্রার সমস্যায় পড়লেও একই জিনিসটি DWDM সিস্টেমকে আপনার স্বাস্থ্যের মধ্যে প্রভাবিত করতে পারে।

সারসংক্ষেপে, DWDM সিস্টেমটি ব্যবহার করার পূর্বে এর পরিবেশের স্বাস্থ্য উপর বিশেষ লক্ষ্য দেয়া উচিত। তাই সিস্টেমটি ব্যবহার করার আগে কোন পরিস্থিতি থাকলে তা নির্নয় করা উচিত এবং আপনাকে বিশেষভাবে নির্দেশ করা উচিত। এছাড়াও, সিস্টেমটি কাজ করার সময় হালকা তাপমাত্রা পরিবেশটি সকল সময় আবহাওয়া বেশি স্বচ্ছ এবং শুচিত থাকতে উচিত। এদের উপর সাবধান থাকার সাথে সাথে আপনি আপনার অপটিক নেটওয়ার্ককে সুরক্ষিত রাখতে পারবেন এবং নেটওয়ার্কের দায়িত্ব পালন করতে পারবেন সম্পূর্ণ সহজে এবং সুরক্ষিতভাবে।

DWDM এর সাথে মুল তথ্য বিপরীত দিশার কেমন?

ডাবলিউডিডাবলিউডি মানে হল ডেন্স ওয়েভ ডিভিশন মাল্টিপ্লেক্সিং। সংস্থা বা কম্পানির মধ্যে বিভিন্ন শাখার মধ্যে তথ্য পাঠানোর জন্য এটি একটি উপযোগী পদক্ষেপ। তবে এটি একটি বেশি সমস্যার সৃষ্টিকারী পদক্ষেপ। সংস্থার মধ্যে মোট দ্বিতীয়দিনে প্রায় সকল বিভাগে তথ্যের দরকার হয়ে উঠে নেই।

এইটা একটি যে সমস্যা সৃষ্টি করে নেয় এবং অন্যায় করে নেয় সেটি হল মুল তথ্য বিপরীত দিকের উত্স হলেও শাখাটি আরও বেশি তথ্য সংগ্রহ করতে পারে। যখন একটি বিভাগ তথ্য প্রেরণ করে তখন সেটি অপর বিভাগের উপর ফাঁকা স্থান থাকলে সেটি ব্যর্থ হবে।

See also  WAN কি? WAN এর বৈশিষ্ট্য কী কী?
নিজের সমস্যা নিয়ে সমাধান খুঁজে না থাকলে দ্বিতীয়বার প্রবেশ করার আগে ভীষণ ক্ষতি উঠানো লাগতে পারে। DWDM এর জন্য একটি সমাধান হল নেটওয়ার্কিং রিপিটার।

নেটওয়ার্কিং রিপিটার বিভাগ এবং বিভাগের মধ্যে হারমনে বিভাগের ভিন্ন মুদ্রার সাথে বিভাগের উপর তথ্য পাঠানোর জন্য ব্যবহৃত হয়। এটি মৃদুতর সিগন্যাল ব্যবহার করে ট্রান্সমিটার এবং রিসিভার সার্ভারে তথ্য পাঠানোর জন্য ব্যবহার করা হয়। এটি বিভাগের মধ্যে শক্তিশালী হিসাবে কাজ করে এবং কম্পানির উপকারে মুল তথ্য সংগ্রহ করতে পারে। একটি উপকারী পরামর্শ হল নেটওয়ার্কিং রিপিটারটি একটি ভারী FAQ বইয়ের মত দেখতে।

য়েহেতু তথ্যের বাজার সুষম এবং Burstiness বা বিপদ খুব উন্নয়নশীল। তাই সবসময় সংজ্ঞপ্ত থাকে সে যখন জরুরি অতিমার্জনে তার উপর সামগ্রী প্রেরণ করে। নতুন ও স্থিতিশীল ফাইবার অপটিক টকটিকার সাথে জুড়ে হাই বার্স্ট দায়িত্ব এবং চলমান শ্রেণীকক্ষগুলির সাথে ডিম্পিং গ্যাপ একটি সমস্যা হতে পারে এবং সমস্যাটি সমাধান করার জন্য নেটওয়ার্কিং রিপিটার একটি বেশি উপকারী পদক্ষেপ। সুতরাং DWDM এর সাথে মুল তথ্য বিপরীত দিশার সমস্যার সমাধানের জন্য নেটওয়ার্কিং রিপিটার একটি উপকারী পদক্ষেপ।

এটি বিভাগের মধ্যে শক্তিশালী হিসাবে কাজ করে এবং অন্যায় স্থিতি থেকে কম্পানির উপকারে মুল তথ্য সংগ্রহ করতে পারে। তাই কম্পানি যদি তার মধ্যে টর্ক কে উন্নয়ন করতে চায়, তবে এটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ যে তা সমাধান করার জন্য সঠিক ধাপ নেয়।

DWDM ব্যবহারে চার্জ কত লাগে?

দুনিয়ার প্রায় সব দেশে ফাইবার অপটিক নেটওয়ার্ক ব্যবহৃত হচ্ছে। এছাড়াও এখন প্রযুক্তির উন্নয়নের মাধ্যমে এই প্রযুক্তি আরও উন্নয়ন পেয়েছে। DWDM হল একটি প্রযুক্তি যা ফাইবার অপটিক নেটওয়ার্ক এর সংযোগ মাঝে মাঝেই আলোর বিভিন্ন রং ব্যবহার করে সর্বোচ্চ ডেটা দর্শকতা প্রদর্শন করে। দামকমপ্লেক্সিটি একটি সাধারণ ব্যাপার হলেও DWDM ব্যবহারে চার্জ একটু বেশি হতে পারে কারণ একটি প্রযুক্তি ব্যবহার করা হল।

তবে, সর্বোচ্চ পারফরমেন্স সম্পন্ন করার জন্য DWDM এর ব্যাপারে একটি নির্দিষ্ট পরিসীমা বিবেচনায় নেয়া উচিত। তার সাথে একটি দক্ষ পেশাদার দ্বারা ইনস্টল করা উচিত। DWDM পারফরমেন্স উন্নয়ন করতে একটি খরচের স্বচ্ছ পরিসীমা সংজ্ঞায়িত করা আবশ্যক, একটি খরচ যা আপনাকে ফল হিসেবে প্রদান করা হতে পারে।

DWDM এর সাথে কি কি প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়?

DWDM একটি উন্নয়নশীল প্রযুক্তি যা উল্লেখযোগ্য তীব্রতা এবং সরলতা সঙ্গে বিভিন্ন রকম সংস্থাগুলিতে ব্যবহৃত হয়। DWDM এর ব্যবহার আসলে বিশাল মাত্রার উজ্জ্বল ব্যান্ডউইথ সরবরাহ করে এবং আধুনিক রাউটিং প্রোটোকল ব্যবহার করে। বিশেষত ক্যাবল নেটওয়ার্কগুলি এই DWDM প্রযুক্তির উপকারিতা খুব উল্লেখযোগ্য। এছাড়াও, DWDM প্রযুক্তিটি বিভিন্ন পরিষেবা সরবরাহকারীর জন্য অন্যান্য আবশ্যিক প্রযুক্তিগুলির সাথে একত্রিত হয়।

কিছু সংস্থাগুলি উপরিউক্ত পুরোনো প্রযুক্তি ব্যাবহার করে এবং ভবিষ্যতে স্কেলাবিলিটি বাড়ানোর কাজ করে আনব। অন্যদিকে, কিছু সংস্থা DWDM দ্বারা উন্নয়নশীল টেকনোলজিগুলি ব্যবহার করে যা একটি আধুনিক এবং উন্নয়নশীল নেটওয়ার্ক সরবরাহ করে। একটি উদাহরণ হল নেটওয়ার্ক সেল্যুলার ভূগোল এবং জনসংখ্যার উপর ভিত্তি করে একটি ব্যবহারকারীর বিনিময় মাধ্যমে টেক্সট ম্যাসেজ এবং অন্যান্য অর্থবোধক রয়েছে। DWDM এর উপকারিতা বৃদ্ধিমূলক হয় এবং প্রয়োজনও বাড়তে থাকে যাতে তাদের পাওয়া সমাধান স্বচ্ছ থাকে।

DWDM ব্যবহার করা কখন উত্তম?

DWDM ব্যবহার করা হলে কয়েকটি সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। একটি প্রধান সমস্যা হল পার্শ্বভাগ দ্বারা উত্পন্ন হওয়া শব্দের প্রবাহ। একটি দলিল হল পার্শ্বভাগ এক পর্দা না। একটি অন্য সমস্যা হল বার্স্টিং।

ব্যান্ডউইথ যখন সীমিত থাকে এবং বার্স্টিং চলতে থাকে তখন এখানে সমস্যা হয়, কারণ মূল্য অতিক্রম করতে পারে। তবে, সমস্যাগুলির সমাধান মিলে যায় ডাবলইউডিএম ব্যবহার করে। স্ক্রীনিং পার্শ্বভাগের একটি পর্দা ব্যবহার করে পার্শ্বভাগের জন্য সমস্যাটি সমাধান করা যেতে পারে। যখন বার্স্টিং চলতে থাকে সমস্যাটি রক্ষা করতে সহায়তা করতে, আমরা শেষ পর্যন্ত ট্রাফিক সম্প্রচার সংখ্যাগুলি পর্যবেক্ষণ করতে পারি।

সেখানে প্রয়োজনীয় অবস্থায় প্রয়োগ করে বার্স্টিং এর সমাধান করা হয়ে থাকে। DWDM এর ব্যবহার সমস্যাগুলি সমাধান করতে সহায়তা করতে পারে এবং এটি উত্তম হতে পারে যদি নেটওয়ার্ক একটি বিশাল সংখ্যাতে ডেটা পাঠাতে হয়। সুরক্ষিত রাখতে হলে মোটেও এটি উপযুক্ত। সাথে সাথে আমরা ডাবলইউডিএম ব্যবহার করে সমস্যাগুলি সমাধান করার দক্ষতা বাড়িয়ে তুলতে পারি।

DWDM নেটওয়ার্ক একটি ভবিষ্যদ্বাণী, এটি প্রধান কারণ হল এটি অনেক তৎকালীন ডেটা পাঠানোর সাথে সাথে তাঁর সমাধান অগ্রসর হতে পারে।

সর্বশেষ ডিডব্লিউডিএম (DWDM) ব্যবহার সম্পর্কে কোন তথ্য আছে?

ডিডব্লিউডিএম (DWDM) ব্যবহার করা হলে একটি দুর্দান্ত ব্যাপার হলেই তবে এটি সমস্যার দিক থেকে একটি বিশেষ পর্যালোচনাও প্রয়োজন। DWDM তথ্য সম্প্রসারণের জন্য একটি উত্তম পদক্ষেপ। তবে এটি খুব সমাঘাতসূচক পরিবেশে কাজ করে যা প্রয়োজনে নিজেকে সমস্যাগ্রস্ত করতে পারে। সমস্যাগুলি পরিসংখ্যানে, সার্ভার কনফিগারেশনে, সিগন্যাল ধারণায় এবং একটি দোষমুক্ত পরিচালনার জন্য খুব সবল নেটওয়ার্ক সেটআপে প্রয়োজন।

এছাড়াও, এটি একটি খুব কম ব্যান্ডউইথ ব্যবহার করে, যা একটি বড় বিষয় এবং উদাহরণস্বরূপ ভিডিও কনফারেন্সিং অথবা অনলাইন স্ট্রিমিং জন্য ব্যবহৃত হতে পারে। DWDM সমস্যা হলে দ্রুত কাজ করতে সম্ভব নয় এবং একটি নিখরচা নেটওয়ার্ক সেটআপ সমাধান করা হতে পারে।

ডিডব্লিউডিএম সম্পর্কে অধিক জানতে কোথায় যাব এবং কীভাবে শিখব?

ডিডব্লিউডিএম বা ডেটা ওয়েভক ডিভিশন মাধ্যমে জানানো যায় একটি সিগনাল বা ডেটার বেশি ভারের সাথে সমন্বিত জানাতে ব্যবহৃত হয়। কিছু টিউনিং প্যারামিটার ব্যবহার করে উপস্থাপন করা হয় এবং এটি প্রকৃতপক্ষে বহুল ব্যবহৃত হয় লম্বা দূরত্ব পার করার জন্য। ডিডব্লিউডিএম এর সাথে কাজ করতে হলে, প্রথমেই এর সংশ্লিষ্ট তথ্যগুলি বিস্তারিত জানতে হবে। এটি প্রথমে যে সমস্যাগুলি দেখা যাচ্ছে সেগুলি সমাধান করতে হবে।

See also  স্টার টপোলজি ব্যবহারের সুবিধা কি?

আপনি বিভিন্ন ওয়েবসাইট এবং ইউটিউব টিউটোরিয়াল দেখে ডিডব্লিউডিএম সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারেন। এছাড়া আপনি কোনো প্রফেশনাল কোর্স এ এনরোল হতে পারেন এবং অতিরিক্ত জ্ঞান অর্জন করতে পারেন। প্রায়শই এই সঙ্গে একটি ডিগ্রী প্রয়োজন নয়, কারণ এটি সাধারণত প্রফেশনাল ডিগ্রীর অংশ নয়।

DWDM এর জনপ্রিয়তা ও প্রযুক্তিগত সুবিধা

DWDM বা Dense Wavelength Division Multiplexing বর্তমানে একটি খুবই জনপ্রিয় প্রযুক্তি হিসাবে পরিচিত। এটি ইন্টারনেট, কমিউনিকেশন ও অন্যান্য প্রযুক্তির জন্য অপরিহার্য হবে। এটি একটি ঘন তরঙ্গ বিভক্তি পদ্ধতি, যা বিভিন্ন তরঙ্গ সমূহের গতি বাড়ায়। DWDM প্রযুক্তিটি একটি সম্পূর্ণ ডিজিটাল নেটওয়ার্ক তৈরি করে এবং সম্পূর্ণ মানসম্পন্ন গতিতে তথ্য পাঠানো যায়।

এটি নিরাপদ, বৃহৎ ব্যান্ডউইথ, বাড়তি দূরত্ব এবং অসামান্য কৌশলী সরবরাহ করে। DWDM প্রযুক্তির এই সুবিধাগুলোর কারণে এটি আজকাল কমিউনিকেশন উদ্যোগের জন্য একটি আবশ্যক প্রযুক্তি হিসাবে স্বীকৃত হয়ে উঠছে।

DWDM চলে আসার পর ইন্টারনেট চিত্র কেমন পরিবর্তিত হয়?

DWDM বা Dense Wavelength Division Multiplexing প্রযুক্তিটি ইন্টারনেট সংযোগের জন্য একটি অত্যন্ত জরুরী তথ্য পাঠানোর মাধ্যম। এই প্রযুক্তির সাহায্যে একই কেবল একটি কেবল চালু রাখে এবং এর মাধ্যমে সকল তথ্য দিয়ে সে একসাথে পাঠানো যায়। সাথে সাথে তার সম্প্রচারটি নিয়ন্ত্রণক্ষমতা, স্পীড এবং ব্যান্ডউইথ এবং সেন্টিং এর পরিমানে একটি বৃদ্ধি দেখা যায়। DWDM প্রযুক্তিটি ইন্টারনেট সংযোগের স্পীড এবং ক্ষমতার উন্নয়নের জন্য অনেক উপকারী হলো।

যা গুডিংস বিভিন্নকে ব্যবহার করার মাধ্যমে সকল তথ্য দিয়ে একসাথে প্রেরণ করে। DWDM চলে আসার পর ইন্টারনেট চিত্রের সাথে একটি পরিবর্তন নেওয়া হয়। একটি ইন্টারনেট চিত্র অনেক লম্বা হতে পারে এবং তার উপর অনেক সত্তার এর প্রভাব পড়তে পারে তবে এখন ইমেজ দেখতে দ্রুত হলেও সেটি কর্তব্য পূর্ণ হয় এবং টাইম নেওয়ার সময় কম হয়।

DWDM ব্যবহার করা হলে কিভাবে প্রতিষ্ঠানের সুবিধা হবে?

DWDM বা Dense Wavelength Division Multiplexing হল একটি কম্পিউটার নেটওয়ার্ক প্রযুক্তি, যার ব্যবহার বৃদ্ধির মাধ্যমে এক পরিবেশ থেকে অনেক পরিবেশে তথ্য সংক্রান্ত সুবিধা প্রদান করা হয়। এটি উচ্চ সংযোগযোগ্যতা প্রদর্শন করে এবং বেশি ভদ্রময় নেটওয়ার্কের ব্যবহারকারীদের সুবিধা প্রদান করে। DWDM ব্যবহার করে প্রতিষ্ঠান অত্যন্ত সুবিধাজনক হয়। এটি নেটওয়ার্ক সংযোগের জন্য প্রযোজ্য হয় এবং সংযোগের গতি বেশি হয়।

এছাড়াও, কম্পিউটার নেটওয়ার্কে মাল্টিপল তথ্য সংক্রান্ত সমস্যার মুক্তি দেওয়ার জন্য DWDM ব্যবহৃত হয়। DWDM ব্যবহার করা থাকলে প্রতিষ্ঠানগুলি অত্যন্ত উন্নত হয়। এটি নেটওয়ার্ক সংযোগের মাধ্যমে শক্তিশালী মধ্যম তৈরি করে এবং একটি সমস্ত নেটওয়ার্কার সুলভ ব্যবস্থা করে। ভালো সম্পর্ক এবং লাভের জন্য প্রতিষ্ঠানগুলি এখন একটি DWDM বেইজড নেটওয়ার্ক ব্যবহার করতে পারে।

এটি নিরাপদ মাধ্যম তৈরি করে এবং নেটওয়ার্ক সংযোগগুলি গতিশীল করে। চলচ্চিত্রগুলি একসাথে প্রেরণ করা হয় এবং একই সাথে নেটওয়ার্কের আরম্ভিক স্বচ্ছতা এবং সম্প্রসারণ বজায় রাখা হয়। আপনি যদি নিরলস ব্যবহারকারী হন এবং নেটওয়ার্ক সংযোগগুলি থেকে সম্পূর্ণ ব্যাবহার করে থাকেন, তবে DWDM আপনার নেটওয়ার্ক নিরাপদ রাখতে সহায়তা করবে এবং উন্নতি করবে আপনার প্রতিষ্ঠানের জন্য।

প্রতিষ্ঠানে ডিডব্লিউডিএম ব্যবহার করলে কী ফলাফল পাওয়া যায়?

ডার্ক ফাইবারে ডিডব্লিউডিএম ব্যবহার করা হয় এমনটা আমরা জানি। তবে নতুন প্রযুক্তিতে এমন অনেক প্রশ্ন আছে যা উত্তর পেতে থাকা একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। DWDM মানে হচ্ছে Dense Wavelength Division Multiplexing যা একটি নতুন ও প্রযুক্তিশীল পদক্ষেপ। এই প্রযুক্তিতে অনেকগুলি ফাইবার বিভক্ত করে দেওয়া হয় যার ফলে অনেক সংখ্যক তথ্য একটি ফাইবার দিয়ে পাঠানো সম্ভব হয়।

প্রতিষ্ঠানে এই পদক্ষেপ নেওয়া হলে, তথ্য প্রযুক্তি সম্পর্কিত সমস্যা কমে যায় এবং আপনি কোন ডেটা হার্ভেস্টিং করতে পারেন। সাথে সাথে আপনার ব্যবসা উন্নতি পাবে এবং নিরাপদ হবে। তাই ডিডব্লিউডিএম ব্যবহার করার ফলে আপনার ব্যবসা উন্নতি করতে পারে এবং কাজের সুবিধা ও সফলতার সাথে আপনাকে আরও প্রতিষ্ঠিত করতে পারে।

DWDM ব্যবহার করা একটি বিশাল প্রতিষ্ঠানের জন্য কেন্দ্রীয়?

DWDM এর সুবিধামূলক প্রযুক্তি ব্যবহার করা ঘনঘন বিশাল প্রতিষ্ঠানগুলোতে মাধ্যম রূপে ব্যবহৃত হচ্ছে। এই প্রযুক্তিটি সম্প্রতি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির বাড়তি উন্নয়নের বলে খেয়াল করা হচ্ছে, যা বিশাল সংস্থাগুলোকে বিভিন্ন নিয়মে সরবরাহ করে থাকে সাথে মাত্র হাই স্পিড নেটওয়ার্ক প্রযুক্তিও উন্নয়ন করে থাকে। এর মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানগুলো বিভিন্ন লোকেশনে বিভিন্ন কাজের জন্য অনেকগুলো নেটওয়ার্ক লিংক সরবরাহ করতে পারে এমনকি ডেটা ট্রান্সফার ও এমনকি কনফিগারেশন ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম পরিচালনা করতে পারেন ব্যবহারকারীরা। এটি নিঃসন্দেহে দ্বিতীয় জেনারেশনের ব্রডব্যান্ড নেটওয়ার্ক সরবরাহকারীদের জন্য দরকারী প্রযুক্তি হিসাবে পরিচিত।

DWDM ব্যবহারের সুবিধা কি?

DWDM ব্যবহার করে কম ব্যান্ডওয়িথে বেশি ট্রাফিক পাঠানো যায় এবং এটি একটি খুব নিরাপদ এবং হাই কোয়ালিটি নেটওয়ার্ক তৈরি করে। এই প্রযুক্তিটি প্রায় সব বিভাগে ব্যবহৃত হয় যেমন টেলিকম, ব্যাঙ্কিং, হাসপাতাল, শিক্ষা ইত্যাদি। এছাড়া এটি কম ব্যান্ডওয়িথে বেশি ডাটা ট্রান্সফার করা যায় এবং ব্যবহারকারীদের বেশি সুবিধা দেয় তাদের কাজ চালানোর সময়। DWDM প্রযুক্তিটি একটি হাইলি স্কেলেবলিটি জনিত এবং এটি শক্তিশালী হিসাবে পরিচিত।

DWDM প্রযুক্তির সবচেয়ে বড় লাভ হল একটি নিরাপদ নেটওয়ার্ক সিস্টেম নির্মাণ করা এবং বেশি ব্যান্ডওয়িথ দিয়ে বেশি ট্রাফিক পাঠানো এবং এই সামগ্রিক কাজের জন্য এটি সাধারণ নেটওয়ার্ক ধারণকারীদের জন্য খুবই ভাল যন্ত্র হিসাবে দিকে।

Leave a Comment