ডেটা এনক্রিপশন কী? জাতীয় পরিচয়পত্রের তথ্য সংবলিত ডেটাবেজের ধরন ব্যাখ্যা করো

ডেটা এনক্রিপশন হল এমন একটি প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে ডেটা এমনভাবে পাঠানো হয় যেন সেটি কারও অনুমতি ছাড়া দেখা যায় না। জাতীয় পরিচয়পত্র বা আইডি হল সে দস্তখত যা একজন ব্যক্তি দেশে বা বিদেশে পরিচয় প্রদান করলে ব্যবহার করা হয়। সেই আইডি বা পরিচয়পত্রের তথ্য সংবলিত ডেটাবেজ (হাফিজ তথ্যভাণ্ডার) হল বিভিন্ন ধরনের তথ্য সংরক্ষণ করার জন্য ব্যবহৃত হয়। এই ধরনের ডেটাবেজে তথ্যবহুল হয়ে থাকে এবং এই তথ্যগুলোকে যেকোনো সময় ঢুকে দেখা এবং পরিবর্তন করা যায়।

ডেটা এনক্রিপশন ব্যবহার করে এই ডেটাবেজের তথ্য সংরক্ষণে একটি নিরাপদ বিকল্প হয় এবং কোন অন্যকে সে তথ্য প্রকাশ না করে সম্পূর্ণ নিরাপদভাবে ব্যবহার করা যায়।

ডেটা এনক্রিপশন কি?

ডেটা এনক্রিপশন হলো একটি নিরাপদ পদক্ষেপ যা ডেটা একটি ঠিকানায় পাঠানো হলে তাকে যথাযথ কোড করার মাধ্যমে সুরক্ষিত করে রাখে। মনে করুন একটি মেসেজ একটি ডেটা হিসেবে পাঠানো হল আপনার বন্ধুকে। এই ডেটা একটি কোড হিসেবে গ্রহণ করা হয় এবং তারপর সম্প্রদায় মাধ্যমে পাঠানো হয়। এই ডেটার কোড সঠিক থাকলে এটি সহজেই পঠিত হয়।

তবে ডেটার কোড কে নিরাপদ করার জন্য ইংরেজী অক্ষর ব্যবহার করা হয় তখন এর সুরক্ষা স্বাভাবিকভাবে সম্ভব নয়। এই সমস্যার সমাধানে ডেটা এনক্রিপশন ব্যবহার করা হয়। এর মাধ্যমে ডেটাকে একটি সর্বনিম্ন সুরক্ষা মান প্রদান করা হয় যাতে এটি স্পষ্ট উপাত্ত হতে না পারে। এটি নির্ভুলভাবে ক্রিপ্টোগ্রাফি তত্ত্ব ব্যবহার করে এবং অনেকটা একটি আংশিক হাউস ডাক থেকে দাখিল হয়ে ছিড়িয়ের মতো কাজ করে।

ডেটা এনক্রিপশন হল কী?

ডেটা এনক্রিপশন হল একটি প্রক্রিয়া যা ডেটা সুরক্ষিত রাখতে ব্যবহৃত হয়। এটি ডেটা বিপর্যস্তদের থেকে সুরক্ষা করে এবং কম্পিউটার কোডে পাঠানো দেখায়া অকপটভাবে কঠিন করে। ডেটা এনক্রিপশন দুটি প্রক্রিয়া ব্যবহৃত করে। প্রথমটি হল ম্যাসেজের মধ্যে উপস্থিত সমস্ত অক্ষর, সংখ্যা এবং প্রতিকৃতির মান গোপন করা।

এই দুটি বিষয় কেবল একটি লোকের কাছে গোপন করা যায় এবং সবচেয়ে ভালো উপায় হল একটি কী ব্যবহার করে। দ্বিতীয়টি হল একটি কী দ্বারা পাঠানো ম্যাসেজ গ্রহনযোগ্য হতে দিয়ে দক্ষতার পরিমাণ পরীক্ষা করা। ডেটা এনক্রিপশন ডেটা বিপর্যস্তদের বর্ণনা সহ উন্নয়ন এবং সিনোফ্যাং গোপনীয়তা বিধিগুলি মেনে চলার উপস্থাপন করে। এই পদক্ষেপগুলির আর্কিটেকচার ডেটা এনক্রিপশন হিসাবে পরিচিত।

ডেটা এনক্রিপশন ব্যবহারের উদ্দেশ্য কী?

ডেটা এনক্রিপশন হল একটি প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে ডেটা রক্ষণাবেক্ষণ করা হয়। ডেটা এনক্রিপশন কি এবং এর ব্যবহার কেন? একটি সংগ্রহকৃত তথ্য কখনোই নিরাপদ নয়। এটি হ্যাকার, একটি কম্পিউটার ভাইরাস, অথবা একটি নির্দোষ মানুষের হাতের মধ্যেও থাকতে পারে। তাই ডেটা এনক্রিপশন সম্প্রসারণ এবং স্টোরেজে ডেটা গুলোকে সংরক্ষণ করার জন্য ব্যবহৃত হয়।

See also  ডেটা হায়ারার্কি কি? ডেটা হায়ারার্কি এর অংশ কয়টি?

সংগ্রহকৃত তথ্যগুলি দ্রুত এবং সহজেই অ্যাক্সেস করা সম্ভব না। ডেটা এনক্রিপশন এর মাধ্যমে তথ্যের সংরক্ষণ নিরাপদ থাকে এবং নিরাপদভাবে ব্যবহৃত হয়। এটি বাণিজ্যিক তথ্য, সমাজ বা রাজনীতির তথ্য, ব্যক্তিগত তথ্য এবং বিতর্কিত পরিস্থিতিতে নিরাপদে থাকে। উল্লেখ্য, ডেটা এনক্রিপশন একটি সুশৃবিত উপায় নয় সর্বনাশ থেকে সংগ্রহকৃত তথ্যকে নিরাপদে রাখতে।

বিভিন্ন ডেটা এনক্রিপশন সিস্টেমের নাম ও তাদের বৈশিষ্ট্য কি?

ডেটা এনক্রিপশন হল তথ্য সুরক্ষা পদ্ধতি যা উপযুক্ত এলগরিদম ব্যবহার করে তথ্যকে একটি কোডের মাধ্যমে রক্ষা করে। এই পদ্ধতির সাহায্যে ডেটা এক সিস্টেম থেকে অন্য সিস্টেমে পাঠানো যায় এবং এটি সম্পূর্ণরূপে মানব পঠিত না হওয়া বিশিষ্ট কোড হিসেবে থাকে । এখন ব্যবহারকারীরা বিভিন্ন ধরণের ডেটা এনক্রিপশন এলগরিদম ব্যবহার করে তাদের নিজস্ব তথ্য সুরক্ষা করতে পারেন। কিছু জনপ্রিয় ডেটা এনক্রিপশন সিস্টেম হল TDE, AES, RSA, SHA, Blowfish, এবং HMAC।

এই সিস্টেমগুলি মূলতঃ বিভিন্ন ধরণের এনক্রিপশন কী এবং ডিক্রিপশন পদ্ধতি ব্যবহার করে। তাদের প্রতিটি সিস্টেমই তাদের বৈশিষ্ট্য এবং সুরক্ষার দিক থেকে আলাদা আছে। সাধারণত, আমরা তথ্য সুরক্ষার জন্য AES এবং RSA ব্যবহার করি যারা প্রতিষ্ঠিত এবং ভরবহুল সিস্টেম।

জাতীয় পরিচয়পত্র এবং তথ্য সংবলিত ডেটাবেজের ধরন

জাতীয় পরিচয়পত্র বা জাতীয় আইডিকে বাংলাদেশের নাগরিকত্ব প্রমাণের জন্য ব্যবহৃত হয়। জাতীয় পরিচয়পত্রের ব্যবহার বিভিন্ন ক্ষেত্রে অধিক করে হচ্ছে। এটি জাতীয় স্বাস্থ্য কার্ড থেকে কর্মচারী নিয়োগ পরীক্ষা পর্ত্থমিক বিদ্যালয় ভর্তি সংক্রান্ত সকল সরকারী কাজে ব্যবহৃত হয়। জাতীয় পরিচয়পত্র বিষয়ক তথ্য সংগ্রহকারী এবং তথ্য সংরক্ষণাগারগুলো এখন অনলাইন আইডি কার্ডে তথ্যসমূহ সংগ্রহ করে তৈরি করে থাকে।

এই ডেটাবেজ ক্রমান্বয়ে সরকার এবং আইনগত ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়। ফলে শাসন ও নিয়ন্ত্রনের জন্য জাতীয় পরিচয়পত্র থেকে ডেটা ব্যবহার করা হয়। অভিজ্ঞ সিস্টেম এবং কর্মীর কাজ সহায়তা হলো এমন একটি সিস্টেম যা দেশের প্রতিটি নাগরিকের জন্য প্রয়োজনীয়।

জাতীয় পরিচয়পত্র এবং তথ্য সংবলিত ডেটাবেজ কি?

জাতীয় পরিচয়পত্র এবং তথ্য সংবলিত ডেটাবেজ হলো দুটি বিভিন্ন ধরনের ফাইল যা একত্রে পরিচালিত হয়ে থাকে। এই ফাইলে মানুষের নাম, ঠিকানা, জন্ম তথ্য, নাগরিকত্বের মূল্যায়ন সহ অনেক তথ্য সংগ্রহ করা হয়। এই সমস্ত তথ্যের সাথে একটি স্বাক্ষরিত ছবি থাকে, যা সম্পূর্ণ নির্ভরযোগ্য এবং সুরক্ষিত । জাতীয় পরিচয়পত্র ও তথ্য সংবলিত ডেটাবেজের মূল উদ্দেশ্য হলো দেশের নাগরিকদের প্রশস্ত সুবিধা দেওয়া এবং প্রতি নাগরিককে তার জন্য একাধিক সুবিধা সরবরাহ করা।

See also  ভাউচার কি? ভাউচার কত প্রকার?

এছাড়াও জাতীয় পরিচয়পত্র এবং তথ্য সংবলিত ডেটাবেজ পুলিশ, সেনাবাহিনী, ব্যাংক ও অন্যান্য সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের জন্য প্রয়োজনীয় তথ্য সরবরাহ করে। জাতীয় পরিচয়পত্র এবং তথ্য সংবলিত ডেটাবেজের সম্পর্কে আরো জানতে হলে নিয়মিত উত্সাহী হতে থাকুন।

নিজের তথ্য থেকে পরিচয়পত্র তৈরি পাওয়া যায় কীভাবে?

জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করতে একজন ব্যক্তির নিজের তথ্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এটি ব্যক্তির পরিচয় ও সম্মানের সচেতনতাকে বাড়িয়ে দেয়। তবে, আমরা যখন পরিচয়পত্র তৈরি করি তখন আমরা একটি অফিসিয়াল প্রক্রিয়া মেনে নেই। কিন্তু যদি আমাদের সঠিক পরিচিতি এবং সম্মানের দৃষ্টিভঙ্গি থাকে তবে আমরা লেখার সাহায্যে নিজের তথ্য থেকে পরিচয়পত্র তৈরি করতে পারি।

সরলতা ও নির্ভয় দিয়ে আমরা নিজের নাম, পিতার নাম, মাতার নাম, জন্ম তারিখ এবং ঠিকানা লিখে দিলেই হবে না। এছাড়াও, অন্যান্য তথ্য যেমন ফোন নাম্বার, ইমেইল এড্রেস ও ভোটার আইডি নাম্বার এর প্রয়োজন নেই। আমাদের নিজের তথ্য থেকে পরিচয়পত্র তৈরি করলে আমরা না কেউকে ম্যানুয়ালি ভুল তথ্য দিতে পারি না। সেই পরিচয়পত্র আমরা ব্যবহার করতে পারলে অনেক সময় ও খরচ বাঁচবে।

এছাড়া দেশের তথ্য সংকলনগুলো নিয়ে সহজেই সরকারি উদ্যোগের অংশ হিসেবে অংশ নিতে পারি।

সরকারি ডেটাবেজ থেকে পরিচয়পত্র তৈরি হওয়ার ক্ষেত্রে ডেটা এনক্রিপশন কেন জরুরী?

আমাদের দেশে জাতীয় পরিচয়পত্র সম্মাননীয় একটি দলিল। যেমন আমরা ব্যবহার করি আমাদের শিক্ষাবিদ্যালয়ের অনুষদ, আমরা প্রতিটি জনকে স্বয়ং পরিচয়পত্রের সাথে সম্পর্কিত করে দেখব। ডেটা এনক্রিপশন ব্যবহার করলে আমরা জাতীয় পরিচয়পত্রের বিভিন্ন ধরনের তথ্যের সুরক্ষা বিনা উপযোগী হতে পারে। একজন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি হওয়ার ক্ষেত্রে, তার জন্য আমাদের কম্পিউটার সিস্টেমের সব ধরণের সামগ্রী সংরক্ষন এবং প্রবেশ সুরক্ষিত করা উচিত।

কারণ কম্পিউটারের সামগ্রীর দ্বারা হ্যাকাররা অসুস্থতা উৎপন্ন করতে পারে এবং তারা সহজেই জাতীয় পরিচয়পত্র উদ্ধার করতে পারে। সুতরাং ডেটা এনক্রিপশন জরুরি কেন এর উন্নয়নে সরকার একটি গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব রাখে এবং এর সম্পর্কে সমূহ সুরক্ষিত করতে হবে।

Leave a Comment